বার্তাবাংলা ডেস্ক »

ভোটের আগের রাতে বিটিআরসি’র নির্দেশে মোবাইল ইন্টারনেট পুরোপুরি বন্ধের পর ভোট শেষে সন্ধ্যায় খুলে দিলেও এদিন মধ্যরাত থেকে ফের থ্রিজি-ফোরজি সেবা বন্ধ করে দেয়া হয়েছে। এতে ভোগান্তি পোহাতে হচ্ছে মোবাইল গ্রাহকদের।

এর আগে ভোটের আগেরদিন শনিবার দুপুর থেকেই মোবাইল ইন্টারনেটের ফোরজি ও থ্রিজি সেবা বন্ধ করে দেয়া হয়। ভোটের দিন দেশজুড়ে মোবাইল ইন্টারনেট পুরোপুরি বন্ধ করে দেয়ায় ব্যবহারকারীরা সাময়িক ভোগান্তিতে পড়েন। তবে ভোটের পরদিন আবার মোবাইল ইন্টারনেট বন্ধ রাখায় গ্রাহকদের ভোগান্তি এখন চরমে।

রোববার একাদশ সংসদ নির্বাচনের ভোটগ্রহণকে সামনে রেখে এই উদ্যোগ কার্যকর করেছে সরকার। কিন্তু নির্বাচনের পরদিন কেন আবার ভোগান্তিতে ফেলা হচ্ছে এই বিষয়ে জানতে বিটিআরসি’র একাধিক কর্মকর্তাকে ফোন করেও কোনো মন্তব্য পাওয়া যায়নি।

উল্লেখ্য, ভোটের মধ্যরাতে নিয়ন্ত্রক সংস্থা বিটিআরসি মোবাইল অপারেটরগুলোকে টুজি ইন্টারনেট সেবাও বন্ধ করার নির্দেশনা দেয়। ভোটের পরদিন ৩১ ডিসেম্বর প্রথম প্রহর পর্যন্ত এই ইন্টারনেট সেবা বন্ধ রাখতে বলেছে রেগুলেটরি কমিশন। এর আগেই শনিবার রাত ১১টার পর থেকে মোবাইল গ্রাহকরা সম্পূর্ণরূপে ইন্টারনেট বিচ্ছিন্ন করা হয়।

এর আগে শনিবার বিকেল ৩টার পর থেকে ফোরজি’র ভয়েস ও ডেটা এবং থ্রিজির ডেটা সেবা পুরোপুরি বন্ধ রাখতে বলে বিটিআরসি।

একটি মোবাইল অপারেটরের একজন কর্মকর্তা বলেন, বিটিআরসির নির্দেশনা অনুযায়ী তারা কাজ করছেন।

শেয়ার করুন »

মন্তব্য করুন »