বার্তাবাংলা ডেস্ক »

স্বাধীনতাযুদ্ধের সময় সংঘটিত মানবতাবিরোধী অপরাধের দায়ে ফাঁসিতে ঝুলিয়ে মৃত্যুদণ্ড কার্যকর হওয়া বিএনপি নেতা সালাউদ্দিন কাদের (সাকা) চৌধুরীর কবরে তার নামের আগে ‘শহীদ’লেখা নামফলক অপসারণ করেছে ছাত্রলীগ। ছাত্রলীগের কেন্দ্রীয় কমিটির সাধারণ সম্পাদক গোলাম রাব্বানির নেতৃত্বে শুক্রবার (২১ সেপ্টেম্বর) বিকেলে নামফলকটি অপসারণ করা হয়।গোলাম রাব্বানি তার ফেসবুক পেজে সাকা চৌধুরীর কবরের নামফলক অপসারণের একটি ভিডিও শেয়ার করেছেন। সেখানে তিনি লিখেছেন, ‘‘দুঃখজনক হলেও সত্য, মানবতাবিরোধী অপরাধে প্রমাণিত, ঘৃণ্য যুদ্ধাপরাধী সালাউদ্দিন কাদের চৌধুরীর কবরের ফলকে নামের আগে লিখা ছিল ‘শহীদ’। বাংলাদেশ ছাত্রলীগ আজ সেই লজ্জায় প্রলেপ দিয়েছে।”এদিকে চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয় ছাত্রলীগের সাবেক সহ-সভাপতি আব্দুল মালেক বলেন, ‘সালাউদ্দিন কাদের চৌধুরী কুখ্যাত রাজাকার। তার নামের আগে শহীদ লিখে মহান মুক্তিযুদ্ধে নিহত ৩০ লাখ শহীদের আত্মাকে কষ্ট দেওয়া হয়েছে। তার মতো একজন কুলাঙ্গারের নামের আগে শহীদ লেখা থাকাটা আমাদের জন্য কলঙ্ক। বিষয়টি বাংলাদেশ ছাত্রলীগের কেন্দ্রীয় সাধারণ সম্পাদক জানার পর তিনি নিজে উপস্থিত থেকে এই কলঙ্ক মোচন করেছেন। শুক্রবার বিকেলে সাধারণ সম্পাদকের নেতৃত্বে ছাত্রলীগ নেতাকর্মীরা সালাউদ্দিন কাদের চৌধুরীর কবরে শহীদ লিখা ওই নামফলকটি অপসারণ করেন।’২০১৫ সালের ২২ নভেম্বর যুদ্ধাপরাদের দায়ে সালাউদ্দিন কাদের চৌধুরীকে ফাঁসিতে ঝুলিয়ে মৃত্যুদণ্ড কার্যকর করা হয়। পরে সালাউদ্দিন কাদের চৌধুরীর গ্রামের বাড়ি চট্টগ্রামের রাউজানে তাকে কবর দেওয়া হয়।

শেয়ার করুন »

মন্তব্য করুন »