বার্তাবাংলা ডেস্ক »

Dating App

সামাজিক যোগযোগ মাধ্যমে বাড়াতে হবে নিজের জনপ্রিয়তা। ফেসবুক, টুইটার, হোয়াটসঅ্যাপে হতে হবে সক্রিয়। আর তা না হলে বিধানসভা ভোটের টিকিট মিলবে না। দলীয় কর্মীদের প্রতি এমনই নির্দেশিকা জারি করেছে ভারতের মধ্যপ্রদেশ কংগ্রেস।

মধ্যপ্রদেশ কংগ্রেস কমিটি (এমপিসিসি)-র ভাইস প্রেসিডেন্ট সিপি শেখরের সই করা ওই নির্দেশিকায় বলা হয়েছে, প্রতিটি প্রার্থীর নিজস্ব ফেসবুক পেজ থাকতে হবে। থাকতে হবে টুইটার অ্যাকাউন্ট। আর ফেসবুকে লাইকের সংখ্যা কমপক্ষে ১৫ হাজার এবং টুইটারে ফলোয়ার সংখ্যা ৫ হাজার হতে হবে। বিধানসভা ভোটের টিকিট পেতে হলে ন্যূনতম এ যোগ্যতা থাকতেই হবে।

একই সঙ্গে সকল দলীয়কর্মীদের হোয়াটসঅ্যাপ গ্রুপে সক্রিয় থাকতে হবে। আর এমপিসিসি’র টুইটার অ্যাকাউন্টে কিছু পোস্ট করা হলে তা লাইক করতে হবে, করতে হবে রিটুইটও।

বিজেপি সামাজিক যোগযোগ মাধ্যমে ক্রমেই শক্তিশালী হয়ে উঠছে। সামাজিক যোগযোগ মাধ্যমে পরিচালনার জন্য বিজেপি নির্দিষ্ট কোর গ্রুপও রয়েছে। প্রতি মুহূর্তে জনপ্রিয়তা বাড়ছে ফেসবুক-টুইটার এবং হোয়াটসঅ্যাপের। প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদির মতো বর্তমানে ফেসবুক-টুইটারে ক্রমেই সক্রিয় হয়ে উঠছেন রাহুল গান্ধীও।

এদিকে আগামী কয়েক মাসের মধ্যেই মধ্যপ্রদেশে বিধানসভা নির্বাচন। রাজনৈতিক মহলের অভিমত, আরও বেশি করে জনমত প্রচার, বিশেষ করে তরুণ প্রজন্মের কাছে পৌঁছে যাওয়ার জন্যই এ পদক্ষেপ নিয়েছে কংগ্রেস। সূত্র : আনন্দবাজার

Dating App
শেয়ার করুন »

মন্তব্য করুন »