বার্তাবাংলা ডেস্ক »

S.I.J.-07
আহসান হাবীব,জাবিঃ

জাহাঙ্গীরনগর বিশ্ববিদ্যালয় শাখা ছাত্রলীগের সাধারন সম্পাদক রাজিব আহমেদ রাসেলের হাতে লাঞ্ছিত হয়েছেন অর্থনীতি বিভাগের শিক্ষক ও সিন্ডিকেট সদস্য নুরুল হক। শনিবার রাত ৯ টায় বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রান্তিক গেইটে এ ঘটনা ঘটে।

প্রত্যক্ষদর্শী সূত্রে জানা গেছে, শনিবার সন্ধ্যায় প্রান্তিক গেইটে ঢাকা-আরিচা মহাসড়কে হেফাজতে ইসলামের সমাবেশ থেকে ফেরত কর্মীদের বাসে তল্লাশী চালায় জাবি গণজাগরন মঞ্চের কর্মীরা। এ সময় ছাত্রলীগের নেতা –কর্মীরা হেফাজতে ইসলামের কর্মীদের মারধর করে বলেও জানা গেছে।

ঘটনাটি দেখতে পেয়ে এর প্রতিবাদ করেন শিক্ষক নুরুল হক ও তার সাথে থাকা অর্থনীতি বিভাগের কয়েকজন সাবেক শিক্ষার্থী। এসময় তাদেরই একজনকে শিবির বলে আখ্যায়িত করে ছাত্রলীগ কর্মীরা। এতে শিক্ষক নুরুল হকের সাথে বাকবিতন্ডায় জড়িয়ে পড়েন জাবি ছাত্রলীগ সাধারন সম্পাদক রাজিব আহমেদ রাসেল। এরপর তিনি অশালীনভাবে ঐ শিক্ষকের হাত টেনে ধরে তাকে ঘটনাস্থল থেকে সরিয়ে দেন। এরপর প্রক্টরিয়াল বডি পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রনে আনে।

এদিকে রাত সাড়ে ৯টার দিকে এ ঘটনার বিচারের দাবিতে শিক্ষক সমিতির সভাপতি অধ্যাপক অজিত কুমার মজুমদারের নেতৃত্বে শিক্ষকরা উপাচার্যের বাসভবনের সামনে অবস্থান নেন। তবে উপাচার্য ঢাকায় থাকায় তার সাথে দেখা করতে পারেননি তারা। এ রিপোর্ট লেখা পর্যন্ত তারা সেখানেই অবস্থান করছিলেন।

নুরুল হক অভিযোগ করে বলেন, ছাত্রলীগ সাধারন সম্পাদকের নেতৃত্বে তিনি শারীরিকভাবে লাঞ্ছনার শিকার হন। তিনি এ ঘটনার সুষ্ঠু বিচার দাবি করেন।

এ ঘটনা অস্বীকার করে ছাত্রলীগ সাধারন সম্পাদক বলেন, আমরা সেখানে গিয়েছিলাম যেকোন ধরনের বিশৃঙ্খলা ঠেকানোর জন্য। সেখানে কোন লাঞ্ছনার ঘটনা ঘটেনি।

প্রক্টর ড. সোহেল আহমেদ বলেন , ছাত্রলীগের নেতা কর্মীরা তার হাত ধরে টানা-হেঁচড়া করেছে বলে অভিযোগ করেছেন ঐ শিক্ষক।

শেয়ার করুন »

মন্তব্য করুন »