বার্তাবাংলা ডেস্ক »

চারদিকে সরকার পতনের পদধ্বনি শোনা যাচ্ছে বলে মন্তব্য করেছেন বিএনপির ভাইস চেয়ারম্যান শামজুজ্জামান দুদু।

তিনি বলেন, শিক্ষর্থীরা চোখে আঙ্গুল দিয়ে দেখিয়ে দিয়েছে দেশের সার্বিক অবস্থা কতটা ভয়াবহ। এ পরিণতির জন্য প্রধানমন্ত্রীকে জাতির কাছে ক্ষমা চাইতে হবে।

শনিবার (৪ আগস্ট) জাতীয় প্রেস ক্লাবের সামনে ‘কুষ্টিয়ার আদালত প্রাঙ্গণে নির্ভিক কলম সৈনিক, দৈনিক আমার দেশ পত্রিকার ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক, বিশিষ্ট সাংবাদিক প্রকৌশলী মাহমুদুর রহমানের ওপর হামলা এবং দেশে চলমান ছাত্রদের যৌক্তিক আন্দোলনে হামলা-মামলার প্রতিবাদে’ আদর্শ নাগরিক আন্দোলন আয়োজিত প্রতিবাদ সমাবেশে তিনি এ কথা বলেন।

দুদু বলেন, শিক্ষার্থীদের মাঠে দেখে প্রধানমন্ত্রীর মাথা খারাপ হয়ে গেছে। এখনও দেশের শ্রমিক-কৃষক-ছাত্র-জনতা মাঠে নামেনি।

সম্প্রতি অনুষ্ঠিত সিটি নির্বাচনে অব্যবস্থাপনার কথা উল্লেখ করে দুদু বলেন, কোমলমতি শিক্ষার্থীদের হাতে সিটি নির্বাচনের দায়িত্ব দিলে সরকারের চাইতে ভালো-সুষ্ঠু ও গ্রহণযোগ্য নির্বাচন করতে পারত।

তিনি বলেন, দেশ, গণতন্ত্র ও সাংবিধানিক শাসনের স্বার্থে অবিলম্বে দেশনেত্রী বেগম খালেদা জিয়াকে মুক্তি দিতে হবে। তার সঙ্গে সংলাপ করতে হবে। সব দলের অংশগ্রহণে ও সবার কাছে গ্রহণযোগ্য নির্বাচনের ব্যবস্থা করতে হবে।

সংগঠনের প্রতিষ্ঠাতা ও সভাপতি মুহাম্মদ মাহমুদুল হাসানের সভাপতিত্বে এরং সাধারণ সম্পাদক অ্যাডভোকেট মো. আল-আমিনের সঞ্চালনায় অনুষ্ঠানে বক্তব্য রাখেন জাতীয় পার্টির প্রেসিডিয়াম সদস্য আহসান হাবীব লিংকন, বাংলাদেশ ন্যাপের মহাসচিব এম গোলাম মোস্তফা ভূইয়া, এনডিপির মহাসচিব মঞ্জুর হোসেন ঈাসা, জাগপার সিনিয়র যুগ্ম সম্পাদক আসাদুর রহমান খান, জিনাফ সভাপতি লায়ন মিয়া মো. আনোয়ার, দেশে বাঁচাও মানুষ বাঁচাও আন্দোলনের সভাপতি কে এম রকিবুল ইসলাম রিপন, ছাত্রদলের সহ-সাধারণ সম্পাদক আরিফা সুলতানা রুমা, সংগঠনের সহ-সভাপতি এম জে সৌরভ, খলিলুর রহমান, সাংগঠনিক সম্পাদক খন্দকার মহিউদ্দিন মাহি, সিনিয়র যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক এস এম কামাল উদ্দিন ইসমাইল প্রমুখ।

শেয়ার করুন »

মন্তব্য করুন »