বার্তাবাংলা ডেস্ক »

ঢাকাই সিনেমার নন্দিত ও জনপ্রিয় চিত্রনায়িকা পূর্ণিমা। দীর্ঘ অনেক বছর ধরেই নেই চিত্র পাড়াতে। নতুন কোনো সিনেমাতে না দেখা গেলেও টিভি শোতে উপস্হাপনা আর চলচ্চিত্রের বিভিন্ন অনুষ্ঠানে দেখা মিলছে নিয়মিত। রোজার ঈদে বেশ কয়েকটি নাটক ও টেলিছবিতে কাজ করলেও আসছে কোরবানির ঈদে টিভিতে দেখা যাবে না পূর্ণিমাকে। তবে ম্যাগাজিন অনুষ্ঠান ‘এবং পূর্ণিমা’র শুটিংয়ে অংশ নেবেন তিনি।

আসল কথায় আসা যাক। আজ (১১ জুলাই) জনপ্রিয় এই অভিনেত্রীর জন্মদিন। কিভাবে কাটছে তার জন্মদিন? পূর্ণিমা জানালেন পরিবারের সাথে কাটাচ্ছেন এই দিনটি। অসংখ্য ভক্তদের শুভেচ্ছায় ভেসে কেটে যাচ্ছে পূর্ণিমার এই দিনটি। আজ দুপুর সাড়ে ১২টায় চ্যানেল আই ‘তারকা কথন’ অনুষ্ঠানে উপস্থিত হয়েছেস তিনি। বাকি সময়টা নিজ বাসভবনে পরিবারের সঙ্গেই কাটাবেন বলে জানান জনপ্রিয় এ চিত্রনায়িকা।

পূর্ণিমা বলেন, ‘বিগত বেশ কয়েকদিন টানা কাজ করেছি। মালয়েশিয়ায় শো শেষ করে দেশে ফিরে জাতীয় চলচ্চিত্র পুরস্কার অনুষ্ঠান নিয়ে ব্যস্ত ছিলাম। আবার ‘এবং পূর্ণিমা’ অনুষ্ঠানেরও শুটিং করেছি। সবমিলিয়েই বেশ ক্লান্ত। যে কারণে জন্মদিনটা একেবারেই নিজের মতো করে কাটাতে চাই, পরিবারের সবার সঙ্গে বিশেষ এ দিনটির সময়টা পার করতে চাই।

জাকির হোসেন রাজু পরিচালিত ‘এ জীবন তোমার আমার’ চলচ্চিত্রের মাধ্যমে ১৯৯৮ সালে ঢাকাই চলচ্চিত্রে অভিষেক হয় দিলারা হানিফ পূর্ণিমার। এরপর ১৫ বছরের অভিনয় ক্যারিয়ারে শতাধিক দর্শকনন্দিত ছবি উপহার দিয়েছেন। পাশাপাশি ছোট পর্দা, অর্থাৎ টেলিভিশনেও করেছেন অত্যন্ত চমৎকার কিছু কাজ।

পূর্ণিমা অভিনীত জনপ্রিয় ছবির মধ্যে উল্লেখযোগ্য হচ্ছে ‘মনের মাঝে তুমি’, ‘মেঘের পরে মেঘ’, ‘হৃদয়ের কথা’, ‘শাস্তি’, ‘সুভা’, ‘রাক্ষুসী’, ‘আকাশ ছোঁয়া ভালোবাসা’, ‘মনের সাথে যুদ্ধ’, ‘ওরা আমাকে ভালো হতে দিলো না’, ‘সুলতান’ ইত্যাদি। কাজী হায়াৎ পরিচালিত ‘ওরা আমাকে ভাল হতে দিলো না’ ছবির জন্য পূর্ণিমা সেরা অভিনেত্রী হিসেবে জাতীয় চলচ্চিত্র পুরস্কার অর্জন করেন।

শেয়ার করুন »

মন্তব্য করুন »