বার্তাবাংলা ডেস্ক »

নেপালে বিধ্বস্ত ইউএস বাংলা উড়োজাহাজের নিহত পাইলট আবিদ সুলতানের স্ত্রী আফসানা খানমকে লাইফ সাপোর্টে রাখা হয়েছে। সোমবার (১৫ মার্চ) সকালে আবারও স্ট্রোক করলে দ্বিতীয় দফায় অস্ত্রোপচারের পর তাকে আগারগাঁওয়ের নিউরো সাইন্স হাসপাতালের নিবিড় পর্যবেক্ষণ কেন্দ্রে (আইসিইউ) লাইফ সাপোর্টে রাখা হয়।

হাসপাতালের ইনফরমেশন ডেস্কের কর্মকর্তা শিহাব এ তথ্য নিশ্চিত করেছেন। তিনি বলেন, তার (আফসানা খানম) অবস্থা ক্রিটিক্যাল। সকালে আবারও তিনি স্ট্রোক করছেন। তাকে বর্তমানে লাইফ সাপোর্টে রাখা হয়েছে।

নিহত ক্যাপ্টেন আবিদ সুলতানের পারিবারিক বন্ধু ও ইউএস বাংলার সাবেক সহকর্মী ক্যাপ্টেন ওয়াহেদু উন নবী জানিয়েছেন, অস্ত্রোপচার শেষে তাকে লাইফ সাপোর্টে রাখা হয়েছে। বর্তমানে তিনি (আফসানা খানম) কোমায় আছেন।

গতকাল রোববার রাজধানীর উত্তরার বাসায় স্ট্রোক করেন পাইলট আবিদ সুলতানের স্ত্রী আফসানা খানম। পরে পরিবারের সদস্যরা তাকে আগারগাঁওয়ের নিউরো সায়েন্স হাসপাতালে ভর্তি করেন। তার মস্তিষ্কে রক্তক্ষরণ হওয়ায় সেখানে অস্ত্রোপচারের পর নিবিড় পর্যবেক্ষণ কেন্দ্রে (আইসিইউ) রাখা হয়।

অাফসানা খানমের বাবা ড. এম এ কাশেম শেখ রোববার বিকেলে সাংবাদিকদের জানান, তিনি আইসিইউতে মেয়েকে দেখে এসেছেন। তার অবস্থা ভালো।

গত ১২ মার্চ (সোমবার) ঢাকা থেকে ছেড়ে যাওয়া ইউএস বাংলা এয়ারলাইন্সের ফ্লাইট বিএস-২১১ নেপালের রাজধানী কাঠমান্ডুর ত্রিভুবন আন্তর্জাতিক বিমানবন্দরে দুর্ঘটনায় পতিত হয়। ৬৭ যাত্রী ও চার ক্রুসহ দুপুর ২টা ২০ মিনিটে বিমানটি বিমানবন্দরের পাশের একটি ফুটবল মাঠে বিধ্বস্ত হয়। এতে ৫১ যাত্রীর প্রাণহানি ঘটে। বাকিদের উদ্ধার করে বিভিন্ন হাসপাতলে ভর্তি করা হয়।

ওই দুর্ঘটনায় পাইলট আবিদ সুলতানকে আহত অবস্থায় উদ্ধার করা হলেও একদিন পর ১৩ মার্চ চিকিৎসাধীন অবস্থান তিনি মারা যান।

শেয়ার করুন »

মন্তব্য করুন »