বার্তাবাংলা ডেস্ক »

রূপচর্চার কাজে আমরা ব্যবহার করে থাকি নানাকিছু। লেবু, শসা থেকে শুরু করে কী নেই সেই তালিকায়! একেকটি উপাদান আমাদের ত্বকের উপকারে একেকভাবে ভূমিকা রাখে। এই তালিকায় রয়েছে বিভিন্নরকম তেল। এর কোনোটি আমাদের চুলের যত্নে বেশি উপকারী, কোনোটি আবার ত্বকের যত্নে। চলুন জেনে নেই রূপচর্চায় তেমনই কিছু তেলের ভূমিকা-

তিসির তেল শরীর ডিটক্স করে মেটাবলিজমের হার ঠিকঠাক রাখে। সে কারণে তিসির তেল ব্যবহার করে শরীরের মাপ আয়ত্তে রাখা যায়।

ক্যাস্টর অয়েল ভ্রু এবং চোখের পাতায় লাগালে ভালো ফল পাওয়া যায়। চোখের পাতা এবং ভ্রু ঘন হয়।

তিল তেল দাঁতের মাড়ির সমস্যা মেটাতে সাহায্য করে। মাড়ি থেকে রক্ত পড়া, মাড়ি আলদা হয়ে যাওয়া রোধ করে।

আমন্ড অয়েলে প্রচুর পরিমাণে ভিটামিন এবং মিনারেল রয়েছে। যা আপনার নখ এবং কিউটিকলের আর্দ্রতা বজায় রাখে। একইসঙ্গে নখের হলুদ ছোপও দূর করে।

হিবিসকাস অয়েল চুল পড়ার সমস্যা দূর করে। সেইসঙ্গে চুল দ্রুত বেড়ে ওঠে।

টি ট্রি অয়েল বা চা গাছের তেল ব্রণর সমস্যা দূর করে।

শীত কালের সব থেকে বড় সমস্যা হল পা ফাঁটা। সেই সমস্যা থেকে রেহাই পেতে অলিভ অয়েল ব্যবহার করা যেতে পারে। এতে দারুণ ফল পাওয়া যায়।

শেয়ার করুন »

মন্তব্য করুন »