স্পেনকে সমর্থন বাংলাদেশের

কাতালুনিয়ার স্বাধীনতা আটকাতে যেসব পদক্ষেপ স্পেন নিয়েছে, তাতে সমর্থন জানিয়েছে বাংলাদেশ। বৃহস্পতিবার পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের এক বিবৃতিতে এই বিষয়ে বাংলাদেশের অবস্থান স্পষ্ট করা হয়।

কাতালুনিয়ার নেতারা সম্প্রতি স্বাধীনতার ঘোষণা দিলে দেশের গুরুত্বপূর্ণ রাজ্যটিকে কেন্দ্রীয় শাসন জারি করে স্পেন সরকার।

কাতালুনিয়ার রাজধানী বার্সেলোনা, এই শহরের ‘এফসি বার্সেলোনা’ বাংলাদেশসহ বিশ্বের অন্যতম জনপ্রিয় ফুটবল দল।

কাতালুনিয়ার পক্ষে অবস্থান না নিতে বিশ্বের বিভিন্ন দেশে তাদের কূটনৈতিক মিশনগুলো সক্রিয় তৎপরতা চালাচ্ছে।

এর মধ্যেই ঢাকার বিবৃতিতে স্পেনের পক্ষে সমর্থন জানানো হল।

ঢাকা-মাদ্রিদ বন্ধুত্বপূর্ণ সম্পর্কের কথা উল্লেখ করে বিবৃতিতে বলা হয়, “আন্তর্জাতিক আইনের মূল নীতি অনুসরণ করে বাংলাদেশ কাতালুনিয়ার বিষয়টি স্পেনের অভ্যন্তরীণ বিষয় হিসেবে মনে করছে।

“স্পেন সরকার এ ক্ষেত্রে সংবিধানিক ক্ষমতাবলে যে সব পদক্ষেপ নিয়েছে, তাতে সমর্থন দিচ্ছে বাংলাদেশ।”

বাংলাদেশ মনে করে, জাতীয় ঐক্য, আঞ্চলিক অখণ্ডতা রক্ষার জন্য এসব পদক্ষেপ নেওয়া হয়েছে।

সেই সঙ্গে ওই অঞ্চলে অস্থিরতার প্রশমন ঘটবে এবং সব নাগরিকের স্বার্থের সুরক্ষা হবে বলে আশা করছে বাংলাদেশ।

স্পেন সরকার ইতোমধ্যে কাতালুনিয়ার প্রধানমন্ত্রী কার্লেস পুজদেমনকে বরখাস্ত করেছে। তিনি তার রাজ্য সরকারের পাঁচজন মন্ত্রী নিয়ে বেলজিয়ামে গিয়ে উঠেছেন।

এদিকে তার সরকারের ১৩ সদস্যকে এ সপ্তাহে আদালতে হাজির হওয়ার নির্দেশ দিয়েছে স্পেনের হাই কোর্ট। স্বাধীনতার ওই ঘোষণাকে সংবিধানবিরোধী পদক্ষেপ হিসেবে দেখছে মাদ্রিদ।