সেনা কর্মকর্তাদের গোপন বৈঠকের খবর ভিত্তিহীন : আইএসপিআর

ঢাকায় সাবেক ও বর্তমান সেনা কর্মকর্তাদের গোপন বৈঠক নিয়ে ভারতের ইংরেজি দৈনিক টেলিগ্রাফে প্রকাশিত প্রতিবেদন ‘ভিত্তিহীন’ বলে উড়িয়ে দিয়েছে আন্তঃবাহিনী জনসংযোগ পরিদপ্তর (আইএসপিআর)।

শুক্রবার আইএসপিআরের পরিচালক লেফটেন্যান্ট কর্নেল রাশিদুল হাসান বলেন, “খবরটি ভিত্তিহীন।”

ভারত ও বাংলাদেশি সূত্রের বরাত দিয়ে গত বুধবার টেলিগ্রাফের ওই প্রতিবেদনে বলা হয়, ঢাকার মহাখালীতে অবসরপ্রাপ্ত এক লেফটেন্যান্ট জেনারেলের বাসায় গত ২১ অক্টোবর বৈঠকে বসেন ২০ জন সাবেক ও বর্তমান সেনা কর্মকর্তা।

পত্রিকাটি লিখেছে, সাবেক একজন সেনাপ্রধানের উপস্থিতিতে ওই বৈঠকে ‘স্পর্শকাতর বিষয়ে’ আলোচনা হয়। কিন্তু বৈঠকের বিষয়টি ফাঁস হয়ে গেলে ‘তাদের পরিকল্পনা অঙ্কুরেই নষ্ট’ করে দেওয়া হয়।

এ ধরনের আরও কন্টেন্ট

ঢাকার একটি সূত্রের বরাত দিয়ে টেলিগ্রাফের প্রতিবেদনে বলা হয়, ওই বৈঠকে অংশগ্রহণকারী সেনা কর্মকর্তাদের ‘চিহ্নিত করে’ তাদের ‘সরানোর প্রক্রিয়া’ শুরু হয়েছে।

কিন্তু একই প্রতিবেদনে প্রধানমন্ত্রীর কার্যালয়ের একটি সূত্রের বরাত দিয়ে বলা হয়, সেনা কর্মকর্তাদের গোপন বৈঠকের কোনো খবর তাদের কাছে নেই।

টেলিগ্রাফকে উদ্ধৃত করে ভয়েস অব আমেরিকার বাংলা বিভাগও একটি প্রতিবেদন প্রকাশ করেছে।

সেখানে লেখা হয়েছে, “বাংলাদেশে অতীতে সেনা অভ্যুত্থান হয়েছে একাধিকবার। তাই খবরটি নিয়ে উদ্বেগ। ২০১৮-র শেষে বাংলাদেশে নির্বাচন। এখন রোহিঙ্গা সমস্যা নিয়ে ও দেশ আলোড়িত। সক্রিয় হয়ে উঠেছে পাকিস্তানি গোয়েন্দা সংস্থা আইএসআই। তারা যে শেখ হাসিনাকে পছন্দ করে না, তা জানা। পর্দার আড়ালে তাহলে কি ঘটছে?”

এ ধরনের আরও কন্টেন্ট