বার্তাবাংলা ডেস্ক »

বিদায়ের ঘণ্টা বেজেছে ‘কৌন বনেগা ক্রোড়পতি’র। আগামী শুক্রবার এই রিয়েলিটি শোর নবম সিজনের শেষ পর্ব প্রচারিত হবে। কিন্তু এ ব্যাপারে কিছুই জানেন না অনুষ্ঠানটির সঞ্চালক অমিতাভ বচ্চন। অনুষ্ঠানটির ব্যাপারে সনি চ্যানেলর কর্তৃপক্ষের এই সিদ্ধান্তের কথা প্রথম তিনি জানাতে পারেন সংবাদমাধ্যমে। আর তাতে খুবই অবাক হয়েছেন, হতাশ হয়েছেন তিনি। গতকাল সোমবার রাতে এক টুইট বার্তায় তিনি ক্ষোভ প্রকাশ করে লিখেছেন, ‘কিছুই বুঝতে পারলাম না!’

‘কৌন বনেগা ক্রোড়পতি’র নবম সিজনের প্রচার শুরু হয় গত ২৮ আগস্ট। আগামী শুক্রবার পর্যন্ত প্রচারিত হবে ৪০টি পর্ব। এরই মধ্যে দর্শকের পছন্দের তালিকায় শীর্ষে পৌঁছে গেছে অনুষ্ঠানটি। সনি চ্যানেল ‘কৌন বনেগা ক্রোড়পতি’ প্রচার হওয়ার সময় ভারতের বাংলা ও হিন্দি ভাষার অন্য চ্যানেলগুলোয় দর্শক থাকে না বললেই চলে। এমনকি সালমান খানের সঞ্চালনায় ‘বিগ বস ১১’ পর্যন্ত তেমন দর্শক টানতে পারছে না। কিন্তু জনপ্রিয়তায় শীর্ষে থাকার পরও কেন অনুষ্ঠানটি বন্ধ করে দিচ্ছে সনি চ্যানেলের কর্তৃপক্ষ? এক সংবাদ বিজ্ঞপ্তির মাধ্যমে সনি চ্যানেল থেকে জানানো হয়েছে, যে সময় ‘কৌন বনেগা ক্রোড়পতি’ প্রচার হয়, আগামী রোববার থেকে ঠিক ওই সময় তিনটি হিন্দি ডেইলি সোপ প্রচার করা হবে। প্রথমটি বিতর্কিত ধারাবাহিক ‘পহেরেদার পিয়া কি’র সিক্যুয়েল ‘রিস্তে লিখেঙ্গে হাম নয়ে’। দ্বিতীয়টি ‘হাসিল’। চলচ্চিত্রে কোনো সাফল্য না পাওয়া নায়ক জায়েদ খান এবারই প্রথম হিন্দি ডেইলি সোপে অভিনয় করছেন। কর্তৃপক্ষের ধারণা, জায়েদ খান অভিনীত ‘হাসিল’ দর্শক ভালোভাবে গ্রহণ করবেন। অন্য ডেইলি সোপের নাম ‘এক দিওয়ানা থা’। এর মধ্য দিয়ে অনেক দিন পর ডেইলি সোপে ফিরছেন নামিক পাল। তিনি সর্বশেষ ‘এক দুঝে কে ওয়াস্তে’ ডেইলি সোপে অভিনয় করেন। এর মাঝে তিনি ট্রাভেল শো আর ওয়েব শোর সঞ্চালনা করেছেন।

‘কৌন বনেগা ক্রোড়পতি’র নবম সিজনে খেলার নিয়মে তেমন কোনো পরিবর্তন হয়নি, কিন্তু অনুষ্ঠানের গতি বাড়ানো হয়েছে। জ্যাকপট প্রশ্নের অর্থমূল্য বাড়িয়ে করা হয়েছে সাত কোটি রুপি। ফার্স্টপোস্ট, ইন্ডিয়া টুডে, জি নিউজ

শেয়ার করুন »

মন্তব্য করুন »