খিলগাঁওয়ে স্ত্রীর অস্বাভাবিক মৃত্যু, স্বামী আটক

রাজধানীর খিলগাঁওয়ে এক নারীর অস্বাভাবিক মৃত্যু হয়েছে। এ ঘটনায় তাঁর স্বামীকে আটক করেছে পুলিশ।

মারা যাওয়া নারীর নাম নূপুর (২৮)। তাঁর গ্রামের বাড়ি পটুয়াখালী সদরের খালিশাখালী গ্রামে। স্বামীর নাম নিজামুল করিম। তিনি গাজীপুরের ধান গবেষণা ইনস্টিটিউটের সহকারী বৈজ্ঞানিক। নিজামুলের দ্বিতীয় স্ত্রী নূপুর।

আজ সোমবার ভোরে নূপুরকে নিথর অবস্থায় ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের জরুরি বিভাগে আনা হয়। পরীক্ষা শেষে তাঁকে মৃত ঘোষণা করেন কর্তব্যরত চিকিৎসক।

এ ধরনের আরও কন্টেন্ট

হাসপাতাল পুলিশ ফাঁড়ির উপপরিদর্শক (এসআই) বাচ্চু মিয়া বলেন, নূপুরের লাশ কলেজের মর্গে রাখা হয়েছে। তাঁর স্বামী নিজামুলকে জিজ্ঞাসাদের জন্য আটক করা হয়েছে। বিষয়টি খিলগাঁও থানার পুলিশকে জানানো হয়েছে।

আটক নিজামুলের ভাষ্য, তিনি ধান গবেষণা ইনস্টিটিউটের সহকারী বৈজ্ঞানিক। তাঁর প্রথম সংসারে স্ত্রী ও দুই সন্তান আছে। তারা গাজীপুরে থাকে। ২০১৬ সালে এক সন্তানের জননী নূপুরকে বিয়ে করেন তিনি। খিলগাঁওয়ে থাকতেন নূপুর। নিজামুল দুই বাসাতেই থাকতেন।

নিজামুল পুলিশকে জানিয়েছেন, গত বৃহস্পতিবার নূপুরের বাসায় আসেন তিনি। পারিবারিক বিষয়ে দুজনের মধ্যে মনোমালিন্য হয়। গতকাল রোববার রাতে খাওয়াদাওয়া শেষে ঘুমিয়ে পড়েন তিনি। আজ ভোররাত চারটার দিকে ঘুম ভেঙে গেলে দেখেন, শয়নকক্ষে নূপুর নেই। পাশের কক্ষে গিয়ে দরজা বন্ধ দেখতে পান। পরে দরজা ভাঙা হয়। কক্ষের সিলিং ফ্যানের সঙ্গে গলায় ফাঁস লাগানো অবস্থায় নূপুরকে ঝুলন্ত পাওয়া যায়। তাঁকে উদ্ধার করে হাসপাতালে আনা হয়।

এ ধরনের আরও কন্টেন্ট