বার্তাবাংলা ডেস্ক »

nadir shahবার্তবাংলা রিপোর্ট :: শেষ পর্যন্ত ১০ বছরের জন্য নিষিদ্ধ হলেন বাংলাদেশের আম্পায়ার নাদির শাহ। ভারতীয় একটি টেলিভিশন চ্যানেলের গোপন অনুসন্ধানে প্রকাশিত রিপোর্টের ভিত্তিতেই এই সিদ্ধান্ত নিলো বাংলাদেশ ক্রিকেট বোর্ড (বিসিবি)। তবে এতে হতাশা ব্যক্ত করে নাদির শাহ বলেছেন, তিনি বিসিবির এই সিদ্ধান্তের বিরুদ্ধে আপিল করবেন এবং এর পাশাপাশি বিসিবির তদন্ত প্রক্রিয়ার স্বচ্ছতা নিয়েও প্রশ্ন রাখবেন।

গত বছরের অক্টোবরে ভারতীয় টেলিভিশন চ্যানেলের সাংবাদিকের পাতানো জালে পা দিয়ে ফেসে যান বাংলাদেশের আম্পায়ার নাদির শাহ। এই সংবাদে বলা হয় অর্থের বিনিময়ে মাঠের সিদ্ধান্ত বদলে দিতে রাজী হয়েছিলেন নাদির শাহসহ বিভিন্ন দেশের ছয় আইসিসি’র আম্পায়ার। এরপরই নাদির শাহ এবং বাংলাদেশী আরেক অভিযুক্ত আম্পায়ার শরফুদৌলা ইবনে শহীদ সৈকতকে সাময়িক নিষিদ্ধ করে বিসিবি। ঘটনার তদন্তে ক্রিকেট বোর্ড গঠিত কমিটির সুপারিশ অনুযায়ী সোমবার নাদির শাহকে ১০ বছরের জন্য সব ধরনের ক্রিকেট থেকে নিষিদ্ধ করা হয়। তদন্ত কমিটি আম্পায়ার সৈকতের কোন ধরণের সংশ্লিষ্টতা খুজে পাইনি। তবে বিসিবির এই সিদ্ধান্তে নিজের হতাশার কথাই জানিয়েছেন নাদির শাহ। আইনজীবীর সাথে কথা বলে আগামি ২/১ দিনের মধ্যে আপিল করবেন বলে জানিয়েছেন নাদির শাহ। একই সময়ে বিসিবির তদন্ত প্রক্রিয়া নিয়ে প্রশ্ন তুলেছেন ৪০টি আন্তর্জাতিক ওয়ানডে এবং ৪টি টি-টোয়েন্টি ম্যাচ পরিচালনা করার অভিজ্ঞতাসম্পন্ন নাদির শাহ। বিসিবির কাছে আপিল করে ন্যায় বিচার না পেলে ক্রিকেট বোর্ডের অনেক গোপন বিষয়েও মুখ খোলার হুমকি দিয়ে রেখেছেন আইসিসি’র সনদপ্রাপ্ত আম্পায়ার নাদির শাহ।

শেয়ার করুন »

মন্তব্য করুন »