শিশুদের শ্বাসরোধে হত্যা, মায়ের মৃত্যু রহস্যজনক

রাজধানীর তুরাগের কামারপাড়ার কালিয়ারটেকের বটতলা এলাকায় একটি বাসা থেকে তিন সন্তানসহ মায়ের লাশ উদ্ধার করেছে পুলিশ। ময়নাতদন্ত প্রতিবেদন বলছে, তিন শিশুকে শ্বাসরোধ করে হত্যা করা হয়েছে। মায়ের মৃত্যু রহস্যজনক।

নিহত তিন শিশু হলো, শান্তা (১৩), আরিফা (৯) ও সাদ (১১ মাস)। মায়ের নাম রেহেনা পারভীন (৩৪)।

চার লাশের ময়নাতদন্ত শেষে ঢাকা মেডিকেল কলেজের ফরেনসিক বিভাগের প্রধান সোহেল মাহমুদ বলেন, শিশুদের শ্বাসরোধ করে হত্যা করা হয়। মায়ের মৃত্যু রহস্যজনক। তাই তাঁর ঘাড়ের টিস্যু পরীক্ষার জন্য সংগ্রহ করা হয়েছে।

নিহত রেহেনার ভাই মাহবুব আলম ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে সাংবাদিকদের কাছে অভিযোগ করে বলেন, এই চারজনকে হত্যা করা হয়েছে। তাঁর আরও অভিযোগ, কালিয়ারটেকের বাড়িটি তাঁর ভগ্নিপতি (রেহেনার স্বামী) মোস্তফা কামালের পৈতৃক সম্পত্তি। তাঁদের সম্পত্তির একটি অংশ ১৭ লাখ টাকায় বিক্রি করা হয়। কিন্তু এই টাকার অংশ মোস্তফা কামালকে দেওয়া হয়নি। এ নিয়ে রেহেনার সঙ্গে মোস্তফা কামালের মা, দেবর, ননদ ও ননদের স্বামীর প্রায়ই ঝগড়া হতো। এরই জের ধরে রেহেনা ও তাঁর সন্তানদের পরিকল্পিতভাবে হত্যা করা হয়েছে।

গতকাল বৃহস্পতিবার দিবাগত রাত একটার দিকে তিন শিশু ও মায়ের লাশ উদ্ধার করে পুলিশ।

তুরাগ থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মাহবুবে খোদা বলেন, মোস্তফা কামাল রাতে বাড়িতে ফিরে দেখতে পান স্ত্রীর লাশ ফ্যানের সঙ্গে ঝুলছে এবং সন্তানদের লাশ খাটে শোয়ানো অবস্থায় আছে।