ইউজিসি উচ্চশিক্ষা কমিশন হচ্ছে

বাংলাদেশ বিশ্ববিদ্যালয় মঞ্জুরি কমিশনকে (ইউজিসি) উচ্চশিক্ষা কমিশনে রূপান্তর করা হচ্ছে বলে জানালেন শিক্ষামন্ত্রী নুরুল ইসলাম নাহিদ। আজ বৃহস্পতিবার রাজধানীর বঙ্গবন্ধু আন্তর্জাতিক সম্মেলন কেন্দ্রে ওয়ার্ল্ড ইউনিভার্সিটিজ অব বাংলাদেশের চতুর্থ সমাবর্তন অনুষ্ঠানে আচার্যের প্রতিনিধি হিসেবে সভাপতির বক্তব্যে তিনি এ কথা জানান।

শিক্ষামন্ত্রী বলেন, বিশ্ববিদ্যালয়ে শিক্ষার মান উন্নয়নের লক্ষ্যে সরকার কাজ করে যাচ্ছে। বিশ্ববিদ্যালয় মঞ্জুরি কমিশনকে আরও শক্তিশালী ও কার্যকর করতে উচ্চশিক্ষা কমিশন আইন তৈরি চূড়ান্ত পর্যায়ে রয়েছে। মন্ত্রী দেশের বাস্তবতা ও জনগণের আর্থসামাজিক অবস্থা বিবেচনা করে শিক্ষার্থী ভর্তির টিউশন ফি একটি সীমা পর্যন্ত নির্ধারিত রাখতে বেসরকারি বিশ্ববিদ্যালয়গুলোর প্রতি আহ্বান জানান।

যেসব বেসরকারি বিশ্ববিদ্যালয় সফল হতে পারেনি, সেগুলোর বিরুদ্ধে আইনি ব্যবস্থা নেওয়া হবে বলে জানান নুরুল ইসলাম নাহিদ। তিনি এও বলেন, তবে তাঁরা চান না বেসরকারি বিশ্ববিদ্যালয়গুলো ব্যর্থ হোক। এগুলো বন্ধ করে দেওয়া তাঁদের উদ্দেশ্য নয়। তিনি আরও বলেন, যাঁরা একান্তই কোনো অসৎ উদ্দেশে বিশ্ববিদ্যালয় চালাতে চান, আইনি বিধিবিধান মানতে চান না, তাঁদের আইনি পথে বাতিল করতে বাধ্য হবেন।

অনুষ্ঠানে সমাবর্তন বক্তা ছিলেন অ্যাসোসিয়েশন অব কমনওয়েলথ ইউনিভার্সিটিজের সেক্রেটারি জেনারেল অধ্যাপক জন উড।

অনুষ্ঠানে আরও বক্তব্য দেন বিশ্ববিদ্যালয় মঞ্জুরি কমিশনের চেয়ারম্যান অধ্যাপক আবদুল মান্নান, ওয়ার্ল্ড ইউনিভার্সিটির উপাচার্য অধ্যাপক আবদুল মান্নান চৌধুরী, বিশ্ববিদ্যালয়টির বোর্ড অব ট্রাস্ট্রিজের ভারপ্রাপ্ত চেয়ারম্যান মুশফিক এম চৌধুরী প্রমুখ।

এবারে মোট ৩ হাজার ১৭৯ জন শিক্ষার্থীকে স্নাতক ও স্নাতকোত্তর পর্যায়ে ডিগ্রি দেওয়া হয়। এর মধ্যে কৃতিত্বপূর্ণ ফলাফলের জন্য তিন শিক্ষার্থীকে আচার্যের স্বর্ণপদক দেওয়া হয়।