রাজশাহীতে জামায়াত-পুলিশ সংঘর্ষ, এসসিহ আহত ৩০, আটক ৩ » Leading News Portal : BartaBangla.com

বার্তাবাংলা ডেস্ক »

rajsahiবার্তাবাংলা ডেস্ক :: রাজশাহী  মহানগরীর হেতেম খাঁ ও বন্ধগেট এলাকায় জামায়াত-শিবির কর্মীদের সঙ্গে পুলিশের সংঘর্ষের ঘটনা ঘটেছে। এতে ৩০ জন আহত এবং ৩ জন আটক হওয়ার খবর পাওয়া গেছে।

বুধবার বিকেল ৪টায় কেন্দ্রীয় কর্মসূচির অংশ হিসেবে জামায়াত-শিবির কর্মীরা মিছিল বের করলে পুলিশ তাতে বাধা দেয়। এ সময় দু’পক্ষের মধ্যে সংঘর্ষ বাধে।

সংঘর্ষে উভয়পক্ষের কমপক্ষে ৩০ জন আহত হয়েছেন। এর মধ্যে রাজশাহী মহানগর পুলিশ সদর দফতরের সহকারী কমিশনার (এসি) সোহেল মাহমুদ ও জনি (৩০) নামের এক ঠিকাদারসহ দু’জনকে রাজশাহী মেডিকেল কলেজ (রামেক) হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে।

প্রতক্ষদর্শীরা জানান, বুধবার বিকেলে হেতেম খাঁ শিবির কার্যালয়ের সামনে থেকে বিক্ষোভ মিছিল বের করেন জামায়াত-শিবির কর্মীরা। এ সময় পুলিশ বাধা দিলে দু’পক্ষের মধ্যে সংঘর্ষ বেধে যায়। জামায়াত শিবির কর্মীরা পুলিশকে লক্ষ্য করে ব্যাপক ইট পাটকেল নিক্ষেপ করেন।

একপর্যায়ে তারা বেশ কয়েকটি ককটেলের বিস্ফোরণ ঘটায়। পুলিশ পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনতে কয়েকশ’ রাউন্ড রাবার বুলেট, টিয়ারশেল ও সাউন্ড গ্রেনেড ছোড়ে। পুলিশের প্রতিরোধের মুখে ১০ মিনিটের মধ্যেই পিছু হটতে বাধ্য হন শিবির কর্মীরা। ঘটনাস্থল থেকে তিন জনকে আটক করে পুলিশ।

এদিকে, মিছিলকারীরা সরে যাওয়ার সময় মহানগরীর বন্ধ গেট এলাকায় পুলিশের সঙ্গে আবারও সংঘর্ষ হয়। এ সময় পুলিশ বেশ কয়েক রাউন্ড রাবার বুলেট ও টিয়ারশেল নিক্ষেপ করে। সংঘর্ষ চলাকালে পুরো বন্ধগেট ও আশপাশের এলাকায় সাধারণ মানুষের মধ্যে আতঙ্ক ছড়িয়ে পড়ে।

সংঘর্ষ থামলে এক পর্যায়ে ছাত্রলীগ ও যুবলীগ কর্মীরা জামায়াত-শিবির নিয়ন্ত্রিত ঘোষপাড়ার রেটিনা ভবনে আগুন দেন। পরে স্থানীয়রা আগুন নেভায়।

মহানগরীর বোয়ালিয়া মডেল থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) জিয়াউর রহমান জিয়া জানান, জামায়াত-শিবির কর্মীরা মিছিল করার সময় পুলিশ তাতে বাধা দিলে এ সংঘর্ষের ঘটনা ঘটে। পরে অতিরিক্ত পুলিশ ও ৠাব ঘটনাস্থলে গিয়ে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনে।

রাজশাহী মহানগর জামায়াতের ভারপ্রাপ্ত আমির প্রফেসর ড. এম আবুল হাশেম ও ভারপ্রাপ্ত সেক্রেটারি ডা. মুহাম্মদ জাহাঙ্গীর এক বিবৃতিতে দাবি করেছেন, তাদের তিনজন গুলিবিদ্ধ এবং ৩০ জন আহত হয়েছেন।

এ ঘটনার তীব্র প্রতিবাদ জানিয়েছেন তারা।

সংঘর্ষের পর ওই এলাকায় অতিরিক্ত পুলিশ মোতায়েন করা হয়েছে।

শেয়ার করুন »

লেখক সম্পর্কে »

মন্তব্য করুন »