যুক্তরাষ্ট্রে প্রশিক্ষণ বিমান বিধ্বস্ত হয়ে বাংলাদেশি তরুণী নিহত

যুক্তরাষ্ট্রের ক্যালিফোর্নিয়া অঙ্গরাজ্যে প্রশিক্ষণের সময় উড়োজাহাজ বিধ্বস্ত হয়ে সায়রা নূর লামিসা নামে এক বাংলাদেশি তরুণী নিহত হয়েছেন। বিধ্বস্ত হওয়া চার আসনের সেসনা-১৭২ উড়োজাহাজটির অপর দুই যাত্রীকে আহতাবস্থায় উদ্ধার করেছে ক্যালিফোর্নিয়ার দমকল বাহিনী।
এনবিসি নিউজের প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, যুক্তরাষ্ট্রের স্থানীয় সময় গত রোববার বিকেলে প্রত্যন্ত এক পাহাড়ি এলাকায় উড়োজাহাজটি দুর্ঘটনায় পড়ে। সিবিএসের প্রতিবেদনে বলা হয়, দুর্ঘটনার প্রায় ২০ ঘণ্টা পরে বিধ্বস্ত উড়োজাহাজ থেকে সায়রা নূরের মৃতদেহ উদ্ধার করে দমকল বিভাগ (ক্যাল ফায়ার)। আর এর অন্য দুই আরোহী ২৫ ও ২৮ বছর বয়সী দুজন পুরুষ নিজেরাই বিধ্বস্ত উড়োজাহাজ থেকে বের হতে পেরেছিলেন এবং নিজেদের মুঠোফোনে দুর্ঘটনায় পড়ার খবর জানিয়ে দমকলের কাছে সাহায্য চেয়েছিলেন।
নিহত সায়রার বাবাও বৈমানিক, তিনি বাংলাদেশ বিমানের ক্যাপ্টেন জাকির হোসেন। ঢাকার উত্তরায় তাঁদের বাসা।
ক্যাপ্টেন জাকিরের সহকর্মী বিমানের ক্যাপ্টেন তারিক হাসান বলেন, এক ভাই ও এক বোনের মধ্যে সায়রা বড়। স্কলাসটিকা স্কুল থেকে উচ্চমাধ্যমিক শেষ করে বাবার মতো বৈমানিক হতে যুক্তরাষ্ট্রে যান সায়রা। ক্যালিফোর্নিয়ার স্যানডিয়েগো শহরে মামার সঙ্গে থাকতেন তিনি। সেখানেই আমেরিকান ফ্লাইং একাডেমিতে ভর্তি হন। দুর্ঘটনার দিন তাঁর প্রশিক্ষক অনুপস্থিত থাকায় তিনি অন্য দুই প্রশিক্ষকের সঙ্গে পর্যবেক্ষণমূলক উড্ডয়নে গিয়েছিলেন। চার আসনের উড়োজাহাজটির পেছনের আসনে বসে ছিলেন সায়রা। মেয়ের মৃত্যুর খবর শুনে তাঁর বাবা যুক্তরাষ্ট্রে রওনা হয়েছেন।