বার্তাবাংলা ডেস্ক »

Dating App

sishu1বার্তাবাংলা ডেস্ক :: সুইডেনে কৃত্রিমভাবে স্থানান্তরিত জরায়ুতে বেড়ে ওঠা প্রথম শিশুটির জন্ম হয়েছে। নতুন ওই দম্পতির পরিচয় আপাতত গোপন রাখা হয়েছে। নির্ধারিত সময়ের আগেই জন্ম নিয়েছে পুত্রশিশুটি, ভর মাত্র ১ কেজি ৮০০ গ্রাম। তা নিয়ে চিন্তিত নন তার পিতামাতা। শিশু ও জন্মদায়িনী (৩৪) দুজনেই সুস্থ আছেন।

জন্মদাত্রী নারীটি জন্মগতভাবিই জরায়ুবিহীন ছিলেন। তার ডিম্বাশয় সচল ছিল। বাচ্চা ধারণ করার জন্যে শুধু একটি জরায়ু প্রয়োজন ছিল তার। যেটি পরবর্তীতে তাকে দিয়েছেন ৬১ বছরের এক প্রবীণা পারিবারিক বন্ধু। জরায়ুদাত্রী প্রবীণা ভদ্রমহিলা আরও সাত বছর পূর্বে তার শরীরে সন্তান ধারনের ক্ষমতা হারিয়েছিলেন।

ঐ সুইডিশ দম্পতি আইভিএফ প্রক্রিয়ার ভেতর দিয়ে গিয়েছিলেন। আইভিএফ হলো শরীরের বাইরে শুক্র ও ডিম্বের নিষেক ঘটানোর প্রক্রিয়া। এ প্রক্রিয়ায় তাদের এগারোটি ভ্রুণ তৈরি হয়, যা শীতলীকৃত করে রাখা হয়েছিল। জরায়ু স্থানান্তরের পর তারই একটি তাতে প্রবেশ করানো হয়।

সুইডেনের গোটেনবার্গ অঞ্চলের সালগ্রেনস্কা মেডিকেল বিশ্ববিদ্যালয়ে অস্ত্রপোচারের মাধ্যমে শিশুটিকে বের করে আনা হয়। পুত্রের বাবা ৩১ সপ্তহের জন্ম নেয়া সন্তানকে নিয়ে ভীষণ আনন্দিত। তিনি বলেন, ‘আমার শিশুটি অসাধারণ। আর কোন শিশুর সঙ্গে তার কোন পার্থক্য নেই। শুধু ভবিষ্যতে বলার মতো তার দারুণ একটি গল্প তৈরি হয়েছে।’

অস্ত্রপোচার দলের প্রধান চিকিৎসক অধ্যাপক ম্যাটস ব্রানস্ট্রম এ শিশুর জন্মলগ্নকে ভীষণ আনন্দঘন ক্ষণ হিসেবে বর্ণনা করেছেন।

Dating App
শেয়ার করুন »

মন্তব্য করুন »