বাংলাদেশের উন্নয়নে আমেরিকা কাজ করে যাচ্ছে

বার্তাবাংলা রিপোর্ট :: মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের রাষ্ট্রদূত ড্যান মজিনা বলেছেন, ‘আমেরিকা লক্ষ্মীপুরে সহযোগী হয়ে কাজ করবে।’

বুধবার সকাল ১১টার দিকে সেভ দ্য চিলড্রেনের একটি প্রকল্প পরিদর্শনের গিয়ে তিনি একথা বলেন।

লক্ষ্মীপুর সদর হাসপাতালে আমেরিকান অর্থায়নে নবজাতকদের জন্য একটি ওয়ার্ড নির্মাণ করে। এতে করে নবজাতক শিশুরা জন্মের পর পরিচচর্যা সেবা পাবে।

স্বাস্থ্যসেবা সম্পর্কে ড্যান মজিনা বলেন, ‘বাংলাদেশের উন্নয়নে আমেরিকা সরকার সব সময় কাজ করে যাচ্ছে এবং যাবে। বিশেষ করে স্বাস্থ্যসেবার উন্নয়নের জন্য বিভিন্ন কর্মসূচি শুরু করেছি। এতে করে গ্রামগঞ্জের অসহায় ও গরীব মানুষের স্বাস্থ্য সেবা নিশ্চিত হবে। এক সময় স্বাস্থ্যসেবা না পাওয়ায় প্রতি বছর শত শত মা ও শিশু মারা যেতো। বর্তমানে সেই অবস্থা আর নেই। দিন দিন পরিবর্তন হচ্ছে।’

তিনি ডাক্তারদের উদ্দেশে বলেন, ‘মানুষের সেবা নিশ্চিত করতে আন্তরিকভাবে কাজ করতে হবে।’

পরে তিনি দুপুর সাড়ে ১২টায় জেলা সার্কিট হাউজ মিলনায়তনে জেলা প্রশাসক একে এম টিপু সুলতান, পুলিশ সুপার শাহ মিজান শাফিউর রহমানসহ প্রশাসনের অন্যান্য কর্মকর্তাদের সঙ্গে মতবিনিময় করেন।
মতবিনিময় শেষে সাংবাদিকদের সঙ্গে আলাপকালে তিনি বলেন, ‘লক্ষ্মীপুর জেলা অনেক সুন্দর। বর্তমানে আইনশৃঙ্খলা উন্নয়ন ঘটেছে। লক্ষ্মীপুরে জাতীয় ইলিশ মাছ পাওয়া যায়। ওই মাছ আমার প্রিয়। এছাড়া এ জেলায় সয়াবিনের রাজধানী হিসেবে পরিচিত। লক্ষ্মীপুর জেলা সদর হাসপাতালে কার্যক্রম দেখে আমার খুব ভালো লেগেছে।’

এ সময় তার সঙ্গে আরও ছিলেন, ইউএসআইডি মিশন ডিরেক্টর জেনিনা জারুসেকসফি, গ্রেস মর্জিনা, লক্ষ্মীপুর জেলা প্রশাসক একেএম টিপু সুলতান, পুলিশ সুপার শাহ মিজান শাফিউর রহমান, সির্ভিল সার্জন ডা. গোলাম ফারুক ভুঁইয়া, অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক সার্বিক শাহাদাত হোসেন, সহকারী পুলিশ সুপার সার্কেল সৈকত শাহিন, জেলা পরিবার পরিকল্পনা উপ-পরিচালক ডা. আশফাকুর রহমান মামুন প্রমুখ।

ড্যান মোজেনা রামগঞ্জ উপজেলা হাসপাতাল পরিদর্শন করেন।