বার্তাবাংলা ডেস্ক »

কুষ্টিয়ার মিরপুর উপজেলায় আধিপত্য বিস্তার নিয়ে দুই পক্ষের সংর্ঘষে একজন নিহত হয়েছে। আহত ১৫ জন। আজ সকাল আটটার দিকে ছাতিয়ান ইউনিয়নের ধলশা গ্রামে এ ঘটনা ঘটে।

ছাতিয়ান ইউনিয়ন পরিষদের (ইউপি) চেয়ারম্যান ও একই ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সভাপতি জসিম উদ্দিন মণ্ডল ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে বলেন, নিহত শহিদুল ইসলাম  ওরফে হক (৫০) তাঁর সমর্থক ছিলেন।

জসিম উদ্দিন মণ্ডলের তথ্যমতে, তাঁর সমর্থকদের সঙ্গে একই ইউনিয়নের আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক তাছের আলী মণ্ডলের সমর্থকদের অনেক দিন ধরে বিরোধ চলে আসছে। গত কয়েক মাসে এই বিরোধ তীব্র হয়ে ওঠে। এর সমাধানে প্রশাসনের সহায়তার কয়েক দফা বৈঠক হয়েছে। আজ সকালে ধলশা বাজারে দুই পক্ষের সমর্থকদের মধ্যে কথা কাটাকাটির এক পর্যায়ে সংঘর্ষ বাধে।

মিরপুর থানার পরিদর্শক (তদন্ত) আজিজুর রহমান বলেন, সামাজিক দ্বন্দ থেকে এ সংঘর্ষ ঘটেছে। আধিপত্য বিস্তারকে কেন্দ্র করে সংঘর্ষের ঘটনায় একজন মারা গেছে। এলাকায় ব্যাপক অভিযান চলছে। বেশ কয়েকজনকে আটক করা হয়েছে। আগে দুই পক্ষের বিরোধ মেটাতে বৈঠক করা হয়েছে। আজ উভয় পক্ষের লোকজন লাঠি-সোঁটা, বল্লম নিয়ে সংঘর্ষ শুরু করে। এতে ফলার আঘাতে শরিফুল ইসলাম হক নামের একজন নিহত হন। আহত ১৫ জনকে উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্স ও কুষ্টিয়া জেনারেল হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে।

শেয়ার করুন »

মন্তব্য করুন »