পুনমের রেকর্ড

বার্তাবাংলা ডেস্ক :: সমপ্রতি ভারতে মুক্তি পেয়েছে শুটিং শুরুর আগ থেকেই বহুল আলোচিত-সমালোচিত ছবি ‘নেশা’। ছবির মূল ভূমিকায় অভিনয় করেছেন সময়ের আলোচিত মডেল পুনম পাণ্ডে। নগ্নতা ও অশ্লীলতার অভিযোগে মাসখানেক আগেই সেন্সরবোর্ড আটকে দিয়েছিল এ ছবিটি। পরিচালক অমিত সাক্সেনা কিছু দৃশ্য কাটছাঁট করে প্রাপ্ত বয়স্কদের ছবি হিসেবে গত সপ্তাহেই মুক্তি দিয়েছেন ‘নেশা’। এ ছবির মাধ্যমে দারুণ চমক দেখিয়েছেন পুনম পাণ্ডে। কারণ, ছবিটি যেসব হলে মুক্তি দেয়া হয়েছে তার সবই এখনও হাউসফুল। তার শরীর প্রদর্শননির্ভর এ ছবিটি দর্শকদের হৃদয়ে কাঁপন তুলতে সক্ষম হয়েছে। এমনটাই চেয়েছিলেন খোদ পুনম। বলেছিলেন, নগ্নতার মাধ্যমে বিদ্যা বালানের ‘দ্য ডার্টি পিকচার’কেও ছাড়িয়ে যাবেন। সেটি করেছেনও পুনম। ছবিতে তিনি যে মাত্রার নগ্ন ও রগরগে দৃশ্যে কাজ করেছেন, তা বলিউডের ইতিহাসে রেকর্ড। তবে এক্ষেত্রে বেশ বাধার সম্মুখীন হয়েছেন তিনি ও তার এ ছবি। কারণ, মুম্বইতে ছবিটি মুক্তি দিতে দেয়া হয়নি। পরিচালক বিষয়টিকে অন্যান্য প্রযোজনা প্রতিষ্ঠানের রাজনীতি হিসেবেই দেখছেন। তবে হিসাবে কষে দেখা গেছে, যেসব মাল্টিপ্লেক্সে ‘নেশা’ মুক্তি পেয়েছে সেগুলো সবই ছিল হাউসফুল। ‘নেশা’র সঙ্গে ‘ভাগ মিকা ভাগ’ ছবিটি মুক্তি পেয়েছে। ফারহান আক্তার অভিনীত এ ছবিটি অবশ্য মুম্বইর বড় মাল্টিপ্লেক্সগুলোতে মুক্তি দেয়া হয়েছে। এদিকে পুনম পাণ্ডে সমপ্রতি ‘নেশা’র মুক্তির রাজনীতি নিয়ে দারুণ ক্ষেপেছেন। নিজের ক্ষোভের কথা জানিয়েছেন মিডিয়ার কাছে।
এ বিষয়ে তিনি বলেন, আমি ‘নেশা’তে যেটা করে দেখিয়েছি সেটা সবাই পারে না। এটা অত্যন্ত সাহসিক একটি চরিত্র ছিল। তবে আমরা নোংরা রাজনীতির শিকার হয়েছি। ‘নেশা’র সাফল্য দেশব্যাপী ছড়িয়ে পড়বে, এমন আশঙ্কায় কিছু প্রযোজনা প্রতিষ্ঠান মাল্টিপ্লেক্সগুলোর সঙ্গে মিলে এ রাজনীতি করছে। এটা খুবই দুঃখজনক। আমি এর তীব্র নিন্দা জানাই। মুম্বইর বাইরে যেভাবে ‘নেশা’ চলছে, সেই বাধাকে থামিয়ে রাখা যাবে না।