কালিগঞ্জে হরতাল করছে জামায়াত

বার্তাবাংলা রিপোর্ট :: সাতক্ষীরার কালিগঞ্জ উপজেলায় শনিবার সকাল ৬টা থেকে আধাবেলার হরতাল কর্মসূচি পালন করছে জামায়াতে ইসলামী।
উপজেলা জামায়াতের আমির কালিগঞ্জ ডিগ্রি কলেজের প্রভাষক মোসলেম উদ্দীনকে গ্রেফতারের প্রতিবাদে এই হরতাল ডেকেছে স্থানীয় জামায়াত।
বৃহস্পতিবার দুপুরে কালিগঞ্জ ডিগ্রি কলেজের সামনে থেকে মোসলেম উদ্দীনকে গ্রেফতার করে পুলিশ।
সাতক্ষীরা জেলা জামায়াতের সেক্রেটারি নুরুল হুদা জানান, কালিগঞ্জ উপজেলায় শনিবার সকাল ৬টা থেকে বেলা ২টা পর্যন্ত আধাবেলার এই হরতাল পালিত হবে।
প্রত্যক্ষদর্শীরা জানান, হরতালের কারণে শনিবার সকাল থেকে কালিগঞ্জে প্রায় সব ধরনের যানবাহন চলাচল বন্ধ রয়েছে। সকাল সাড়ে ৯টা পর্যন্ত অধিকাংশ দোকান-পাটও ছিল বন্ধ।
তারা জানান, হরতালে জামায়াত-শিবির উপজেলা সদরে কোনো ধরনের পিকেটিং করেনি। তবে সদরের বাইরে নলতা-শিবনগর এলাকায় তারা একটি যাত্রিবাহী বাস ভাংচুর করেছে।
সাতক্ষীরার কালিগঞ্জ সার্কেলের সহকারী পুলিশ সুপার (এএসপি) লস্কর তাজুল ইসলাম বাস ভাংচুরের সত্যতা স্বীকার করে বলেন, পুলিশ ঘটনাস্থলে উপস্থিত হলে পিকেটাররা দ্রুত পালিয়ে যায়।
তিনি বলেন, “একাত্তরে মানবতাবিরোধী অপরাধের দায়ে আন্তর্জাতিক অপরাধ ট্রাইব্যুনাল গত ২৮ ফেব্রুয়ারি জামায়তের নায়েবে আমির দেলওয়ার হোসাইন সাঈদীর ফাঁসির রায় ঘোষণার পর জামায়াত এবং এর অঙ্গ ও সহযোগী সংগঠনগুলো দেশজুড়ে সহিংসতা চালায়।”
এএসপি তাজুল বলেন,  “ওই সময় কালিগঞ্জে সরকারি গাছ কেটে সড়ক অবরোধ, উপজেলার নলতায় ১৪৪ ধারা ভঙ্গ করে মিছিল থেকে বিজিবির ওপর হামলা, পুলিশের গাড়ি ভাংচুরসহ বেশ কয়েকটি সহিংসতার ঘটনায় উপজেলা জামায়াতের আমির মোসলেমউদ্দিন (৫০) জড়িত ছিলেন। তিনি সরকারি গাছ কাটাসহ পাঁচটি মামলার এজাহারভুক্ত আসামি। এসব মামলায় তাকে আটক করা হয়েছে।”