বার্তাবাংলা ডেস্ক »

Dating App

চোখ জুড়িয়ে যাবার মতো এক গোল। প্রায় ৩০ গজ দূর থেকে বুলেট গতিতে শট নিয়েছিলেন ভিনসেন্ট কোম্পানি। কেউ কিছু বুঝে উঠার আগেই সেটা জড়িয়ে যায় জালে। ওই এক গোলেই পূর্ণ তিন পয়েন্ট নিয়ে মাঠ ছাড়ার স্বস্তি পেয়েছে পেপ গার্দিওলার ম্যানচেস্টার সিটি।

সোমবার রাতে ইতিহাদে ১-০ গোলের জয়ে প্রিমিয়ার লিগ শিরোপাতেও এক হাত দিয়ে ফেলেছে তারা। নিকট প্রতিদ্বন্দ্বি লিভারপুলের থেকে দুই পয়েন্ট পিছিয়ে থেকে শুরু করা ম্যানসিটি এখন তাদের থেকে এক পয়েন্ট সামনে। ৩৭ ম্যাচে তাদের পয়েন্ট ৯৫। সমান ম্যাচে লিভারপুলের ৯৪।

ম্যাচে দাপট দেখিয়েই খেলেছে ম্যানসিটি, বেশ কয়েকটি সুযোগ তৈরি করেছিল লেস্টার সিটিও। কিন্তু গোলের দেখা পাচ্ছিল না কোনো দলই। ৭০ মিনিট পর্যন্ত চলেছে শুধু গোল পাওয়ার লড়াই।

৩১ মিনিটেই অবশ্য এগিয়ে যেতে পারতো ম্যানসিটি। ইকে গুনদোগানের ক্রসে দারুণ এক হেড করেছিলেন সার্জিও আগুয়েরো। ৬ গজ দূর থেকে নেয়া আর্জেন্টাইন স্ট্রাইকারের সেই হেড গোললাইন পেরুনোর ঠিক আগে ফিরিয়ে দেন লেস্টার গোলরক্ষক কাসপের স্মাইকেল।

৩৪ মিনিটে বক্সের ঠিক বাইরে থেকে নেয়া ডেভিড সিলভার বাঁ পায়ের জোড়ালো শট গোলপোস্টের পাশ ঘেঁষে চলে যায়।

দ্বিতীয়ার্ধেও আক্রমণ চালিয়ে যেতে থাকে ম্যানসিটি। এরই মধ্যে ৬৪ মিনিটে লেস্টারের হ্যারি মাগুইরে বল নিয়ে নিজেদের প্রান্ত থেকে অনেকটা দৌড়ে চলে যান প্রতিপক্ষের বক্সের কাছাকাছি। পাস দিয়েছিলেন জেমস ম্যাডিসনকে। ইংলিশ স্ট্রাইকারের শট একটুর জন্য ঠিকানা খুঁজে পায়নি।

৬৯ মিনিটে ম্যানসিটির সংঘবদ্ধ একটি আক্রমণ রুখে দেন লেস্টার গোলরক্ষক। তবে রুখতে পারেননি ভিনসেন্ট কোম্পানির বিস্ময় গোল। প্রায় ৩০ গজ দূর থেকে বুলেট গতির এক শট নেন বেলজিয়ান ডিফেন্ডার, সেটি তাকিয়ে দেখা ছাড়া কিছুই করার ছিল না লেস্টার গোলরক্ষকের। শেষ পর্যন্ত ওই এক গোলের জয় নিয়েই মাঠ ছাড়ে পেপ গার্দিওলার দল।

Dating App
শেয়ার করুন »

মন্তব্য করুন »