বার্তাবাংলা ডেস্ক »

chittagongবার্তাবাংলা ডেস্ক ::চট্টগ্রামে জুমার নামাজের পর শাহবাগের ‘গণজাগরণ মঞ্চবিরোধী’ স্লোগান দিয়ে মিছিল করে সাংবাদিকদের ওপর হামলা চালিয়েছে কয়েকটি ইসলামী সংগঠনের কর্মীরা।

শুক্রবার দুপুরে নামাজের পর নগরীর আন্দরকিল্লা মোড়ে ‘গণজাগরণ মঞ্চবিরোধী’ বিভিন্ন স্লোগান দিয়ে বিক্ষোভ শুরু হয়। এ সময় চিত্র ধারণ করতে গেলে বিক্ষোভকারীরা সাংবাদিকদের ওপর হামলা চালায়।

এরপরই মিছিলকারীরা আন্দরকিল্লা মোড় থেকে চেরাগী পাহাড় মোড় হয়ে জামালখান প্রেসক্লাব আসে। সেখানে শাহবাগের গণজাগরণ আন্দোলনের সংহতি গণমঞ্চে ভাংচুর ও হামলা চালায় বলে জানান কোতোয়ালি থানার ওসি মহিউদ্দিন সেলিম।

তিনি বলেন, মিছিলকারীরা গণমঞ্চে থাকা ব্যানার-ফেস্টুন ছিঁড়ে ফেলে এবং সেখানে থাকা বিভিন্ন ব্যানার জড়ো করে আগুন লাগিয়ে দেয়। পরে তারা প্রেসক্লাবের দিকে ইটপাটকেল নিক্ষেপ করে। এতে সেখানকার কাচ ভেঙ্গে যায় বলে জানান ওসি।

All Media Link

চেরাগী পাহাড় মোড়সহ বিভিন্ন স্থানে পুলিশ বাধা দিলে মিছিলকারীরা পুলিশের উপর হামলা চালায়। দফায় দফায় হামলায় দুই পুলিশ ও ১০ সাংবাদিকসহ অন্তত ২০ জন আহত হয়েছেন বলে জানান ওসি।

চট্টগ্রাম প্রেসক্লাবের সাধারণ সম্পাদক মতিন চৌধুরী বলেন, হামলায় দোতলার ভিআইপি লাউঞ্জের বেশকিছু কাচ ভেঙ্গে গেছে। প্রেসক্লাবের ভিতরে থাকা দুটি মোটসাইকেলের ক্ষতি হয়। নিচে বইয়ের দোকান বাতিঘরও ভাংচুর করে মিছিলকারীরা।

তিনি জানান, মিছিলকারীরা জামালখান রোডে এসে প্রেসক্লাবে ইট-পাটকেল ও লোহার রড নিক্ষেপ করতে থাকে।

সাংবাদিকদের উপর হামলা ও প্রেসক্লাবে ভাংচুরের প্রতিবাদে তাক্ষণিকভাবে জামালখান রোডে চট্টগ্রাম সাংবাদিক ইউনিয়ন ও প্রেসক্লাবের উদোগে বিক্ষোভ মিছিল হয়েছে বলে জানান মতিন চৌধুরী।

হামলায় যুগান্তরের আলোকচিত্রী রাজেশ চক্রবর্তী, ইনকিলাবের আলোকচিত্রী কুতুব উদ্দিন, মাছরাঙার ক্যামেরাম্যান রবিউল টিপু, এটিএন বাংলার ক্যামেরাম্যান ফরিদ উদ্দিন, এটিএন নিউজ এর ক্যামেরাম্যান অমিত দাশ ও বণিকবার্তার প্রতিনিধি ওমর ফারুক আহত হন।

তাদের মধ্যে ইনকিলাবের কুতুব উদ্দিনকে চট্টগ্রাম মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে। তার ক্যামেরাও রেখে দিয়েছে হামলাকারীরা।

তাবারুল জানান, জুমার নামাজের পরপরই আন্দরকিল্লা জামে মসজিদ থেকে একটি মিছিল বের হয়। মিছিলটি আন্দরকিল্লা মোড়ে আসার পরপরই হামলার ঘটনা ঘটে। পরে সাংবাদিকরা সেখান থেকে সরে যান।

হামলার পর পুলিশি বেস্টনির মধ্যে বিক্ষোভকারীরা আন্দরকিল্লা মোড়ে সমাবেশ শুরু করে বলে তাবারুল জানান।

ফেসবুকের মাধ্যমে মন্তব্য করুন »

শেয়ার করুন »

লেখক সম্পর্কে »

মন্তব্য করুন »