বার্তাবাংলা ডেস্ক »

Vidyaবিনোদন ডেস্ক :: বলিউডের ‘ডার্টি গার্ল’ হিসেবে বহুল খ্যাতি অর্জিত বিদ্যা বালান বিয়ে করেছেন দুই মাসও হয়নি। এরই মধ্যেই তিনি মা হতে যাচ্ছেন। এমন একটা খবর বেশ ভালোভাবেই ছড়িয়েছে বলিউডের আকাশে-বাতাসে। অবশ্য এর পেছনে একটা কারণও আছে। সম্প্রতি মুম্বাইয়ে অনুষ্ঠিত জি সিনে অ্যাওয়ার্ড ২০১৩ অনুষ্ঠানে সিদ্ধার্থ রায় কাপুরের সঙ্গে ‘মোটা পেট’ নিয়ে হাজির হন বিদ্যা বালান। আর তার এই অবস্থা দেখে অনেকেরই তো মাথায় হাট। বিয়ে হলো মাত্র কয়েকদিন এরই মধ্যে কিভাবে ঘটলো ঘটনাটা? অনুষ্ঠানে সবার মধ্যেই কানাঘুসা শুরু হয়ে গেলো। সত্যিই কি বিদ্যা তাহলে মা হচ্ছেন?

অনুষ্ঠানে অভিনেতা হৃতেশ দেশমুখতো ঠাট্টা করে বলেই ফেললেন, এটি খুবই অনাকাঙ্খিত। বিয়ের মাত্র এ কদিনের মধ্যেই সিদ্ধার্থ তার স্ত্রী বিদ্যাকে অন্তসত্ত্বা বানিয়ে ছেড়েছে।

অভিষেক বচ্চনও এ নিয়ে যখন কৌতুক শুরু করলেন আর তখনই বিদ্যা চমকটা ভেঙে দিলেন।

All Media Link

স্টেজে শাহরুখ খানের সঙ্গে কথা বলতে গিয়ে বিদ্যা বলেন, আসলে কৌতুক করেই আমি অনুষ্ঠানে অন্তসত্ত্বা সেজে এসেছি। তবে আমার পাশে এখন দুজন এসআরকে দাঁড়িয়ে। একজন শাহরুখ খান অন্যজন সিদ্ধার্থ রায় কাপুর।

এ খবরটা নিছক কৌতুক করা হলেও এখন অবশ্য অনেকেই তা সত্যি বলে মনে করছেন। জীবনে সবচেয়ে গুরুত্বপূর্ণ এসআরকের থেকে সন্তান বিষয়ে কোনো বার্তা নেবেন এ লাস্যময়ী অভিনেত্রী।

সকল জল্পনা-কল্পনার অবসান ঘটিয়ে গত বছরের ১৪ ডিসেম্বর ইউটিভি মোশন পিকচার্সের প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা সিদ্ধার্থ রায় কাপুরকে বিয়ে করেন বিদ্যা বালান। এর আগে প্রায় তিন বছর ধরে তাদের মধ্যে মন দেওয়া-নেওয়া চলেছে।

উল্লেখ্য, বিদ্যা বালান হিন্দি, বাংলা ও মালায়াম ভাষার ছবিতে অভিনয় করেন। ২০০৩ সালে বাংলা ছবি ‘ভালো থেকো’ এ অভিনয়ের মধ্য দিয়ে চলচ্চিত্রে তার অভিষেক ঘটে। ২০০৫ সালে ‘পরিণীতা’ ছবি দিয়ে বলিউডে তার অভিষেক ঘটে। ২০০৬ সালে তার অভিনীত ‘লাগে রাহো মুন্নাভাই’ ছবিটি ছিল ব্লকবাস্টার হিট।

হেই বেবি (২০০৭) ও কিস্মত কানেকশন (২০০৮) এ গ্ল্যামারাস চরিত্রে অভিনয়ের জন্য সমালোচিত হলেও পা (২০০৯), ইশকিয়া (২০১০), নো ওয়ান কিলড জেসিকা (২০১১), দ্য ডার্টি পিকচার (২০১১) ও কাহানি (২০১২) এ প্রশংসনীয় অভিনয় করে তিনি বলিউডের শীর্ষ অভিনেত্রীতে পরিণত হন। ‘দ্য ডার্টি পিকচার’ ছবিতে অভিনয়ের জন্য তিনি ২০১১ সালে জাতীয় চলচ্চিত্র পুরস্কার জিতেন।

http://politicalnewsbd.com/we-need-greater-solidarity-in-the-muslim-ummah/

ফেসবুকের মাধ্যমে মন্তব্য করুন »

শেয়ার করুন »

লেখক সম্পর্কে »

মন্তব্য করুন »